নর্থ সাউথে শিক্ষার্থীদের দাবি মানার আহবান ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের



বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের সংস্কারপন্থীদের পক্ষ থেকে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেয়ার আহবান জানানো হয়েছে । আজ রাত নয়টায় আহ্বায়ক এপিএম সুহেল এবং সদস্য সচিব ইসমাইল সম্রাট স্বাক্ষরিত এক প্যাডে এই আহ্বান জানানো হয় । এতে বলা হয় :

"বৈশ্বিক করোনা মহামারীতে সারাবিশ্বই আজ পর্যুদস্ত। এমন একটা সময়ে দেশের "শীর্ষস্থানীয় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় 'নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়' এর শিক্ষার্থীদেরও চরম একটি বাস্তবতার সম্মুখীন হতে হচ্ছে৷ অনলাইনে তাদের পাঠদান কর্মসূচি চলছে। এমতাবস্থায় বিগত ৪মাসে তাদেরকে এক্টিভিটি ফি,কম্পিউটার ল্যাব ফি, সায়েন্স ক্লাব ফি,লাইব্রেরি ফি দিতে বলা হয়েছে । যেখানে অন্যান্য বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে মহামারী করোনার জন্য Corona Waiver দেওয়া হচ্ছে; সেখানে অনলাইনে ক্লাস করেও এসব ফি নেয়া অযৌক্তিক৷ তারা আজ সকাল ১০টা হতে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি ফটক অবরোধ করে রেখেছিল।

আমরা বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ তাদের এই দাবির সাথে একাত্মতা প্রকাশ করছি ও ফি মওকুফ করতে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে আহবান জানাচ্ছি।"

উল্লেখ্য করোনাকালীন পরিস্থিতি বিবেচনায় আগামী ২২ অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া নতুন সেমিস্টারে টিউশন ফিতে ৩০% ওয়েভার এবং স্টুডেন্ট এক্টিভিটি প্রত্যাহারে দাবিতে আন্দোলনে নেমেছেন নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা । দুই দফা দাবি আদায়ে রোববার সকালে অবস্থান কর্মসূচির পর বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশের সব গেট বন্ধ করে রাখেন আন্দোলনকারীরা । এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসিকে প্রায় তিন ঘন্টা অবরুদ্ধ করে রাখে ।

No comments

Powered by Blogger.